ডিমলায় আমন ধানে পোকার আক্রমণে দিশেহারা কৃষক

নীলফামারী, 18 October 2021, 43 বার পড়া হয়েছে,

নীলফামারী জেলার ডিমলা উপজেলা বিভিন্ন গ্রামে চলতি বছর আমন ধানের চারা রোপনের শুরুতেই প্রাকৃতিক দুর্যোগ বন্যার পানিতে তলিয়ে যায় আমন ধানের রোপনকৃত চারা। বন্যার পানি নেমে যাওয়ার পর স্বপ্ন দেখেন স্থানীয় কৃষকেরা । জমিতে ধানগাছ গুলো এখন যৌবনে ভরপুর। ধান গাছের ডগার বুক চিরে বের হবে সবুজ কচি ধানের শীষ। এই সময় দেখা দিয়েছে বিভিন্ন ধরনের পোকার আক্রমন। সবুজ গাছের ডগাগুলো পরিণত হয়েছে খড়ে। কৃষকেরা হতাশ ও দিশেহারা। এমন পরিস্থিতিতে কৃষকেরা বালাইনাশক ঔষুধ ব্যবহার করলেও কোন প্রতিকার পাচ্ছে না। আমন ধানে বাড়তি খরচ গুনতে হচ্ছে কৃষকদের।

২নং বালাপাড়া ইউনিয়নের দক্ষিন সুন্দর খাতা, মধ্যম সুন্দর খাতা, নিজ সুন্দর খাতা গ্রামের কৃষকেরা জানান, পোকার আক্রমনে বিবর্ণ হয়ে যাচ্ছে ধান ক্ষেত। ডগডগে সবুজ ধানগাছ গুলো আগুনে পোড়ার মতো দিনদিন শুকিয়ে খড়ে পরিনত হচ্ছে। চারা রোপনের পর বর্তমান পর্যন্ত ৩-৪ বার বালাইনাশক ঔষুধ স্প্রে করেও ধান ক্ষেতে কোন প্রতিকার পাওয়া যাচ্ছে না। কৃষকের যে স্বপ্ন ও আশা ছিল তা এখন গুড়ে বালী। এই খড় কেটে গৃহপালিত পশুকে খাওয়ানো উচিত হবে না মর্মে জানান। এরই মধ্যে গত ১৬ অক্টোবর রাত ১২ টার সময় হঠাৎ ঝড় ও বৃষ্টি শুরু হয়। ঝড় ও বৃষ্টিতে আমন ধানের গাছগুলো মাটিতে পড়ে গিয়ে ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। কৃষকেরা এবার আমন মৌসুমে লাভবান হতে পারবে না। ঝড়ের তান্ডবে মাঠের পর মাঠ জমির ধান নুয়ে পড়ে। সোনালী ফসল ঘরে তোলার আগেই কৃষকের স্বপ্ন নষ্ট হয়ে গেল।