রামেক হাসপাতালে করোনা ও উপসর্গে আরও ১৩ মৃত্যু

রাজশাহী, 3 July 2021, 114 বার পড়া হয়েছে,

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার সকাল পর্যন্ত চিকিৎসাধীন অবস্থায় তারা মারা যান। এদের মধ্যে ৫ জন পজিটিভ এবং ৮ জন উপসর্গে মারা যান। রামেক হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ২ জুলাই করোনা ও উপসর্গে ১৭ জন মারা যান। এর মধ্যে ১২ জনই মারা গেছেন করোনা শনাক্তের পর। বাকিরা উপসর্গ নিয়ে মারা যান। রামেক পরিচালক জানান, নতুন মৃতদের ৭ জন রাজশাহীর (পজিটিভ ২, উপসর্গে ৫), চাঁপাইনবাবগঞ্জের ১ জন (উপসর্গে ), নাটোরের ৩ জন (পজিটিভ ২, উপসর্গে ১), নওগাঁয় ১ জন (উপসর্গে) পাবনায় ১ (পজিটিভ) জন। মৃতদের মধ্যে পুরুষ ৯ ও নারী ৪ জন। শনিবার সকাল পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় রামেক হাসপাতালে নতুন ভর্তি হয়েছেন ৬১ জন। এদের মধ্যে রাজশাহীর ৩৫, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ৪, নওগাঁর ৭, নাটোরের ১০, পাবনার ২, কুষ্টিয়া ২ ও সিরাজগঞ্জে ১ জন রয়েছেন। একই সময়ে সুস্থ হয়ে রামেক হাসপাতাল ছেড়েছেন ৪৪ জন।

তিনি বলেন, আজ শনিবার সকাল পর্যন্ত এ হাসপাতালের ৪০৫ বেডের বিপরীতে করোনা ও উপসর্গের রোগী ভর্তি রয়েছেন ৪৭৮ জন। গতকাল শুক্রবার ভর্তি ছিলেন ৪৬৮ জন। অতিরিক্ত বেডের ব্যবস্থা করে অতিরিক্ত রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। ভর্তি রোগীদের মধ্যে রাজশাহীর ৩২৫, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ৫১, নওগাঁর ৪০, নাটোরের ৩৮, পাবনার ৯, কুষ্টিয়া ৭, চুয়াডাঙ্গা ৩, জয়পুরহাট ২, সিরাজগঞ্জ ২ ও মেহেরপুরের ১ জন রয়েছেন।

রামেক পরিচালক জানান, শুক্রবার রাজশাহীর দুই ল্যাবে দুই জেলার ৫৫৪ জনের নমুনা পরীক্ষায় করোনা পজিটিভ হয়েছে ১৪৯ জনের। এদিন রাতে প্রকাশিত দুইটি পিসিআর ল্যাবের নমুনার ফলাফলে দেখা যায়, রাজশাহী শনাক্তের হার ২৬ দশমিক ৭৪ শতাংশ, চাঁপাইনবাবগঞ্জে শনাক্তের হার ২৭ দশমিক ২২ শতাংশ।