রাতের আধারে মামলার বাদির বাড়িঘরে লুটপাট ও আগুন

ময়মনসিংহ, 4 September 2019, 351 বার পড়া হয়েছে,


নুরুল হুদা, নেত্রকোনা প্রতিনিধি :

 ‌‌ নেত্রকোনার সদর উপজেলায় একটি মামলার বাদির ঘরে লুটপাট শেষে বাড়িতে আগুন দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষ আসামিদের বিরুদ্ধে। অভিযোগকারীদের মতে মামলার জেরেই পুরুষ শূন্য বাড়িতে ঢুকে প্রতিপক্ষের লোকজন শোধ নিতে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ করেছে। মঙ্গলবার (০৩ আগস্ট) বিকেলে সদরের ঠাকুরাকোণা ইউনিয়নের পাহাড়পুর গ্রামে নিজ বাড়িতে দাঁড়িয়ে ভুক্তভোগি বৃদ্ধা আনোয়ারা আক্তার এ অভিযোগ করেন। তিনি জানান, মঙ্গলবার ভোরে প্রতিপক্ষ মামলার আসামি মো. জাকির হোসেন, মো. রাতিন, মো. মামুন ও ওমর ফারুখসহ সঙ্গীয় লোকজন ঘরের টিনে রামদা দিয়ে কুপিয়ে ভিতরে ঢুকে পড়ে। পরবর্তীতে সুকেজ থেকে নগদ ৩০ হাজার টাকাসহ আনুমানিক দেড় লাখ টাকার স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়। যাওয়ার সময় বাড়ির সামনের ছোট্ট একটি ঘরে আগুন লাগিয়ে দেয়। এরআগে আসামি পক্ষের লোকজন পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পরিকল্পনা মতে গাছের ডাল কাটাকে কেন্দ্র করে সোমবার (২৬ আগস্ট) সকালে আনোয়ারাসহ তার ছেলে আরব আলী, কলেজছাত্রী নুসরাত আক্তারকে কুপিয়ে জখম করে। পরে এ ঘটনায় আনোয়ারার ছেলে আরব ছয়জনকে আসামি করে নেত্রকোনা মডেল থানায় মামলা (মামলা নম্বর-৪৮) দায়ের করে। এর জের ধরেই বাড়িঘরে লুটপাট ও অগ্নি সংযোগ করে বলে বাদি পক্ষের অভিযোগ। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নুরুল হক জানান, লুটপাট ও অগ্নি সংযোগের খবর পেয়ে বিকেলে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়। এ ব্যাপারেও আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিকে অভিযুক্তদের সাথে কথা বলতে গিয়ে তাদের কাউকে বাড়িতে পাওয়া যায়নি। তবে পরিস্থিতিতে চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে ভুক্তভোগি পরিবারের সদস্যরা।