চকবাজারে উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত , নিহত ৭৮

জাতীয়, 21 February 2019, 352 বার পড়া হয়েছে,

স্টাফ রিপোর্টার : ঢাকার চকবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাতের ১৫ ঘণ্টা পর আগুন নিভিয়ে উদ্ধার অভিযানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার ( ২১ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১টায় ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন উদ্ধার অভিযান আনুষ্ঠানিকভাবে সমাপ্ত ঘোষণা করেন।
তিনি বলেন, ‘যারা নিহত হয়েছে তাদের পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চলছে। পরিচয় শনাক্ত হলে তাদের স্বজনদের দেখে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে। এছাড়া যাদের একেবারেই শনাক্ত করা যাবে না তাদের ডিএনএ টেস্ট করে আঞ্জুমানে মফিদুল ইসলামের মাধ্যমে দাফন করা হবে।’
মেয়র বলেন, ‘বর্তমানে এই এলাকায় বিদ্যুৎ ও গ্যাসসহ সংশ্লিষ্ট সব সেবা বন্ধ রাখা হয়েছে। ফায়ার সার্ভিসের পক্ষ থেকে সেগুলো ছাড়পত্র দেওয়া হলে চালু করা হবে। তবে দ্রুত সময়ের মধ্যে এগুলোর ছাড়পত্র দেওয়ার জন্য ফায়ার সার্ভিসকে আহ্বান জানাচ্ছি। এছাড়া ঘটনাস্থলে আবর্জনার যে স্তূপ জমে আছে সেগুলো পরিষ্কারের জন্য সিটি করপোরেশন ফায়ার সার্ভিসের সঙ্গে সমন্বয় করে কাজ করবে।’
ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল, পুলিশের মহাপরিদর্শক ড. জাভেদ পাটোয়ারীসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।
সকালে ফায়ার সার্ভিসের পরিচালক একেএম শাকিল নেওয়াজ সাংবাদিকদের বলেন, এখানে রাস্তা সরু, পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি নেই, বিভিন্ন ধরনের কেমিক্যাল, বৈদ্যুতিক ওয়ারিং এলোমেলো। সব মিলিয়ে এখানে একটা ভয়ঙ্কর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।
এ দিকে আগুন লাগার ঘটনায় শোক জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী। এ ছাড়াও বিভিন্ন মন্ত্রী ও মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকেও শোক এবং সমবেদনা জানানো হয়েছে।
এর আগে সকালে আগুন নেভানোর পর তল্লাশি চালিয়ে ৭০টি লাশ উদ্ধারের কথা জানায় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স। তবে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক মেডিসিন বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ আজ দুপুরে সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা এ পর্যন্ত মেডিকেল কলেজ মর্গে ৬৭টা লাশ পেয়েছি। আরো ১১টা লাশ আমাদের হাসপাতালে মর্গে আছে। এই টোটাল ৭৮টা লাশ।